Lead Banner

‘বিএনপি নির্বাচনে আসতে চায় না, বানচাল করতে চায়’

7

নিজস্ব প্রতিবেদক: নয়াপল্টনে বিএনপি অফিসের সামনে পুলিশের ওপর হামলার ঘটনায় বিএনপিকে দায়ী করেছেন সড়ক পরিবহন ও সেতুমন্ত্রী এবং আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক ওবায়দুল কাদের।

তিনি বলেন, ‘নয়াপল্টনে বিএনপির তাণ্ডবের ঘটনা পূর্ব পরিকল্পিত। বিএনপি আসলে নির্বাচনে আসতে চায় না। তারা মূলত নির্বাচন বানচাল করতে চায়। তাই এই ধরনের তাণ্ডব ঘটিয়ে তারা অস্থিরতা সৃষ্টি করছে।’

সমসাময়িক রাজনৈতিক ইস্যু নিয়ে বৃহস্পতিবার সকালে সচিবালয়ে সড়ক পরিবহন ও সেতু মন্ত্রণালয়ের সভাকক্ষে এক সংবাদ সম্মেলনে ওবায়দুল কাদের এসব কথা বলেন।

তিনি বলেন, ‘বুধবার আন্দোলনের নামে সহিংসতার আশ্রয় নিয়েছে বিএনপি। তারা পরিকল্পিতভাবে পুলিশের ওপর হামলা চালিয়েছে। ভিডিও ফুটেজ আপনারা (সাংবাদিক) দেখেছেন। তারা পুলিশের গাড়িতে উঠে শেখ হাসিনার পতন চেয়েছে। এটা কেন? তারা আসলে নির্বাচনে যেতে চায় না, তারা নির্বাচন বানচাল করতে চায়। বিএনপি যদি আবারো নির্বাচন বানচালের চেষ্টা করে তাহলে জনগণই তা প্রতিহত করবে। কারণ সাধারণ মানুষ নির্বাচন চায়।’

আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক বলেন, ‘নির্বাচনের আগে এ ধরনের ঘটনা সাধারণ মানুষের মধ্যে আতঙ্ক তৈরি করেছে। তবে আপনাদের ভাবতে হবে এর জন্য কে দায়ী? বিএনপি কর্মীরা সেখানে ম্যাচ জ্বালিয়ে গাড়িতে আগুন ধরিয়েছে, সেখানে বলা হচ্ছে ছাত্রলীগ নাকি হামলা করেছে।’

‘আমি ভাবতে পারিনি মির্জা ফখরুল এতোটা মিথ্যা কথা বলবেন। তিনি এ নিয়ে যে মন্তব্য করেছেন তাতে আমরা হতবাক। ছাত্রলীগ নাকি হামলা করেছে এটা কেউ বিশ্বাস করবে? আমি ভাবতেও পারিনি মির্জা ফখরুলের মুখে এমন মিথ্যা কথা শুনতে হবে,’বলেন ওবায়দুল কাদের।

হামলার ঘটনায় ব্যবস্থা নেবেন কি না জানতে চাইলে সেতুমন্ত্রী বলেন, ‘আমরা তো নির্দেশ দিতে পারি না। এখন এটা নির্বাচন কমিশনের এখতিয়ার। তারা স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয়কে বলতে পারে তদন্ত করার জন্য। আমরা দেখছি, নির্বাচন কমিশন কী ব্যবস্থা নিতে পারে?’

নির্বাচনকালীন সরকার বিষয়ে ওবায়দুল কাদের বলেন, ‘নির্বাচনকালীন সরকার বলে কোনো কিছু সংবিধানে নেই। পৃথিবীর সব দেশে যখন নির্বাচন হয় তখন বর্তমান সরকার দায়িত্বে থাকে। আর নির্বাচন কমিশন বাকি দায়িত্ব পালন করে।’

বীকনবাংলা/অমৃ